বুধবার, ২০ অক্টোবর ২০২১, ০২:১৫ অপরাহ্ন
নোটিশ :
সময়ের চোখ ডট নেট ওয়েবসাইটে আপনাদের স্বাগতম। আমাদের পাশে থাকার জন্য কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। সময়ের চোখ ডট নেট অনলাইন নিউজ পোর্টালের কর্মরত সকল সাংবাদিকদের ই-মেইলে নিউজ পাঠাতে অনুরোধ করা হলো।
সংবাদ শিরোনাম ::

রয়েল গ্রুপের তত্বাবধানে দ্রুত গতিতে চলছে পদ্মা রেল লিংক প্রকল্পের কাজ 

  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১১ মার্চ, ২০২১, ২.৫৮ পিএম
  • ২২১ বার পঠিত

আর টি হাসানঃ

বাংলাদেশ রেলওয়ের বৃহত্তম প্রকল্প পদ্মা সেতু রেল লিংক প্রকল্পটি বিভিন্ন চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি হচ্ছে।

সেতুর দুপাশে রেলওয়ের জন্য নির্মানাধীন ভায়াডাক্টের নকশায় পরিবর্তন, কোভিড-১৯ মহামারি, বিভিন্ন সরকারি সিদ্ধান্ত ও জনপ্রতিনিধিদের চাহিদার প্রেক্ষিতে প্রকল্পের কার্যপরিধি পরিবর্তনই বড় চ্যালেঞ্জ।

নির্মাণাধীন পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে ১৬৯ কিলোমিটার রেল লাইনের মাধ্যমে রাজধানীর সঙ্গে যশোরের রেল সংযোগ তৈরি করতে এই প্রকল্পটির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে ২০১৬ সালের মার্চে।দ্রুততম সময়ে প্রকল্পটি বাবাস্তবায়িত  হওয়ার লক্ষে বিভিন্ন ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে খন্ডিত করে দেওয়া হয় কাজ। এ কাজের  প্রাথমিক ভাবে ব্যয় ধরা হয় ৩৪ কোটি ৯৮৯ কোটি টাকা।

তবে প্রকল্পের মাঠ পর্যায়ের কাজ শুরু হয় ২০১৮ সালের জুলাই মাসে। মূলত, চীনা এক্সিম ব্যাংকের সঙ্গে ঋণ চুক্তি সম্পন্ন হতে দেরি হওয়ার কারণেই কাজ শুরু করতে দেরি হয়।

এরই মধ্যে, প্রকল্পের ব্যয় বেড়ে দাঁড়ায় ৩৯ কোটি ২৪৬ কোটি টাকায়। বাড়ানো হয় কাজ শেষ করার সময়সীমাও। দুই বছর বাড়িয়ে এই সময়সীমা নির্ধারণ করা হয় ২০২৪ সাল পর্যন্ত।

অন্যান্য সব প্রকল্পের মতো এই প্রকল্পটিও কোভিড-১৯ মহামারির কারণে গত বছরের শুরুর দিকে বাধার মুখে পড়ে।

তবে সব বাধার অবসান ঘটিয়ে ফের শুরু হয়েছে প্রকল্পটির কাজ।

ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান রয়েল ট্রেড এন্ড ইন্জিনিয়ারিং কোম্পানির এক উর্ধতম কর্মকর্তার সাথে কথা হলে তিনি প্রতিবেদক কে জানান-নির্ধারিত সময়-সীমার মধ্যই ইনশাআল্লাহ প্রকল্প কৃতপক্ষকে আমরা আমাদের কাজ সম্পূর্ণ বুঝিয়ে দেব।আমরা ফরিদপুর জয়বাংলা মোড় হতে মুকসুদপুর কুমার নদ রেলসেতুর আগপর্যন্ত সাড়ে তিন কিলোমিটারের কাজ পেয়েছি।আমরা ভালো এবং মানসম্মত টেকসই যোগাযোগে উপযোগী একটা রেল সড়ক কতৃপক্ষর কাছে হস্তান্তর করবো।আশা করছি দ্রুত সময়ে এ কাজ শেষ করতে সক্ষম হবো।

এদিকে আগামী বছরের জুনে পদ্মা সেতু জনসাধারণের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়ার কথা রযেছে। একই সঙ্গে রেল প্রকল্পটির মাওয়া থেকে ভাংগা অংশও খুলে দেওয়ার পরিকল্পনা করেছে প্রকল্প কর্তৃপক্ষ।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

131d5763789044479a781faf3fa13867
© All rights reserved  2021 ‍SomoyerChokh
Theme Download From ThemesBazar.Com